বালুরঘাটে অস্বাভাবিক মৃত্যু বেড়েই চলেছে !


শনিবার,২১/১১/২০১৫
293

পরিতোষ বর্মণঃ    দিনদিন দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার বালুরঘাটে বেড়েই চলেছে অস্বাভাবিকভাবে মৃত্যুর সংখ্যা। গত শুক্রবার অজ্ঞাত এক মহিলার পর শনিবার ফের এক ব্যক্তির পচাগলা মৃতদেহ উদ্ধার হল পুকুর থেকে। শনিবার বিকেলে বালুরঘাটের খরাইল ঘুটুপাড়া এলাকার একটি পুকুর থেকে কান্দন মুরমু নামে এক আদিবাসী ব্যক্তির পচাগলা মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। পুকুর থেকে মৃতদেহ টেনে তুলতেই কান্নায় ভেঙে পড়েন কান্দন মুরমুর পরিবার। কান্দন মুরমু বালুরঘাটের সার্কিট হাউসে কাজ করতেন। পরিবার সূত্রে জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার কান্দন মুরমু অফিসে বেড়িয়ে যাওয়ার পর তিনি আর বাড়ি ফেরেননি। মাঝে এই কয়েকদিন একাধিকবার তাঁর মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করলে মোবাইল বন্ধ রয়েছে বলে জানতে পারে পরিবার। শেষ পর্যন্ত শনিবার বিকেলে বাড়ির পাশের একটি পুকুরে কান্দন মুরমুর মৃতদেহটি ভেসে থাকতে দেখে স্থানীয়রা। ঘটনা জানাজানি হতেই পুকুর পাড়ে ভিড় জমায় এলাকাবাসিরা। পুলিশে খবর দিলে ঘটনাস্থলে আসে বালুরঘাট থানার পুলিশ। ঘটনায় শোকের ছায়া নেমে আসে এলাকায়। পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠিয়েছে। এলাকাবাসি ও পুলিশের প্রাথমিক অনুমান মদ্যপ অবস্থায় পুকুরের জলে পড়ে যাওয়ার ফলেই মৃত্যু হয়েছে কান্দন মুরমুর। তবে মৃত্যুর সঠিক কারণ জানতে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। Paritosh Barman_photo

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট