ভাঙড়ের পাওয়ার গ্রিডের জট কাটাতে মুখ্যমন্ত্রীর নয়া উদ্যোগ


শুক্রবার,২৯/১২/২০১৭
486

নিজস্ব প্রতিবেদক: ভাঙড়ে পাওয়ার গ্রিডের জটিলতা কাটাতে নয়া উদ্যোগ নিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। শুধুমাত্র জমিদাতাদের নয়, এবার যাদের জমির ওপর দিয়ে তার যাবে তাদেরও উপযুক্ত ক্ষতিপূরণের আশ্বাস দিলেন তিনি।

বৃহস্পতিবার দু পক্ষের সংঘর্ষের পর শুক্রবার মোটামুটি শান্ত ছিলে ভাঙড়। তবে আতঙ্ক কাটেনি। শুক্রবার সকালে অনন্তপুর মোড় থেকে উদ্ধার করা হয় তাজা বোমা। রাস্তায় পড়ে ছিল কার্তুজের তাজা খোল। দোকান-বাজার খুললেও ছিলো আতঙ্কের ছাপ।

এদিকে পাওয়ার গ্রিডের বিরোধিতায় শুক্রবারও বকডোবা থেকে শ্যামনগর পর্যন্ত মিছিল করেছে জমি জীবিকা বাস্তুতন্ত্র রক্ষা কমিটি। নতুন করে যাতে অশান্তি আর না বাধে, সে কারণে ভাঙড়ের বিভিন্ন জায়গায় বসানো হয়েছে পুলিস পিকেট।

এদিন দক্ষিণ ২৪ পরগনার তৃণমূল সভাপতি শোভন চট্টোপাধ্যায়, মন্ত্রী রেজ্জাক মোল্লা, তৃণমূল নেতা আরাবুল ইসলাম, কাইজার আমেদকে নবান্নে ডেকে পাঠিয়ে কড়া ধমক দেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আর ভাঙড়ে পাওয়ার গ্রিডের জটিলতা কাটাতে উদ্যোগ নিয়ে জানান, জমির ওপর দিয়ে বিদ্যুতের তার গেলে মালিকদের ক্ষতিপূরণ দেবে রাজ্য সরকার। পাশাপাশি ভাঙড়ের উন্নয়নে নেতাদের একযোগে কাজ করার নির্দেশ দেন মুখ্যমন্ত্রী।

গত এক বছর ধরে পাওয়ার গ্রিড আন্দোলন ঘিরে অশান্ত ভাঙড়। স্থানীয় মানুষ না চাইলে পাওয়ার গ্রিড হবে না, স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছিলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী।

নবান্ন সূত্রে খবর, রাজ্য সরকার চায় পাওয়ার গ্রিড হোক। কারণ, খোঁজ নিয়ে দেখা গিয়েছে পাওয়ার গ্রিড চান স্থানীয়রাই। কিন্তু বিরোধী ও বহিরাগতরা অকারণে অশান্তি পাকাচ্ছে।

রাজ্য সরকারের ক্ষতিপূরণের প্রস্তাব অবশ্য মানতে নারাজ জমি জীবিকা বাস্তুতন্ত্র রক্ষা কমিটি। পাওয়ার গ্রিড না হওয়ার দাবিতেই অনড় তাঁরা।

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট