কান্দী বাসষ্ট্যান্ড বাজার কমিটির সার্বজনীন দূর্গোৎসবের এবারের আকর্ষনীয় থিম হিমাচল প্রদেশের “মাসারার রক কাট কাঙ্গরা মন্দির”


শুক্রবার,১২/১০/২০১৮
277

বাংলা এক্সপ্রেস---

বহরমপুরঃ- মুর্শিদাবাদ জেলার বহরমপুরে পুরাতন কান্দী বাসষ্ট্যান্ড বাজার কমিটির সার্বজনীন দূর্গোৎসবের এবারের আকর্ষনীয় থিম হিমাচল প্রদেশের “মাসারার রক কাট কাঙ্গরা মন্দির”। ৩৮বছরের এই পুজো এই প্রথম বৃহস্পতিবার দ্বিতীয়ার রাত্রে শুভ উদ্বোধন হয়। এই পুজোর শুভ উদ্বোধন করেন টলিউড নায়িকা শুভশ্রী গাঙ্গুলী এবং পরিচালক রাজ চক্রবর্তী। প্রতিবছর বিশেষ বিশেষ আকর্ষনীয় থিম ডাল শস্য, আবার কোন বার রান্নার বিভিন্ন মসালা দিয়ে প্রতিমা তৈরী হয়েছে এখানে। অন্যান্য বছরের তুলনায় তাদের কাছে একটু আলাদা এই বছরের পুজো। শিল্পীর হাতের ছোঁয়ায় ফুটে উঠছে “মাসারার রক কাট মন্দির”। মন্দিরের সামনেই থাকছে একটি সুদৃশ্য পুকুর, সেই পুকুরের জলে মূল মন্দিরের প্রতিচ্ছবি ভেসে উঠছে। জেলার বড় বড় পুজোর সঙ্গে পাল্লা দিয়ে জেলার সেরা পুজোর স্থান জিতে নেওয়ার চেষ্টায় ক্লাব কর্তারা।

হিমাচল প্রদেশের “মাসারার রক কাট কাঙ্গরা মন্দির” বৃহস্পতিবার রাত্রি ৯টা নাগাদ উদ্বোধন হয়। শুভশ্রী এবং রাজ প্রদীপ প্রজ্বলের মধ্যে দিয়ে মন্দিরের ফিতে কেটে শুভ উদ্বোধন করেন। উদ্বোধন অনুষ্ঠান ঘিরে অসংখ্য মানুষের ভিড়। বৃষ্টিকে উপেক্ষা না করেই দর্শনার্থীরা এদিন প্রতিমা দর্শনে মন্দিরে প্রবেশ করেন।  প্রতিমায় বিশেষ আকর্ষন মাটির প্রতিমা কিন্তু চিনামাটির তৈরী প্রতিমা বলেই মনে হচ্ছে। তাছাড়া মায়ের দশ হাতে নেই অস্ত্র। বিনা অস্ত্রে অসুরকে দমন করছেন মা দশভূজা। সামনের পুকুরে রাত্রে বিশেষ আলোর মাধ্যমে মন্দিরের উল্টো প্রতিবিম্ব দেখা যাচ্ছে। এদিন রাত্রে উদ্বোধন অনুষ্ঠান ঘিরে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানও। আতস বাজীর রোশনায় পূজা মন্দির আলোকিত হয়ে যায়। প্রথম দিনেই দরর্শার্থীদের ভিড় ছিল চোখে পড়ার মতো।

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট