ছত্রিশগড়ে ল্যান্ডমাইন বিস্ফোরণে শহিদ হলেন পাঁচ CRPF জওয়ান


রবিবার,২৮/১০/২০১৮
240

বাংলা এক্সপ্রেস---

সাগরদিঘীঃ শনিবার বিকেলে ছত্রিশগড়ে ল্যান্ডমাইন বিস্ফোরণে শহিদ হলেন পাঁচ CRPF জওয়ান। জখম আরও এক জওয়ান। পাঁচ নিহত জওয়ানদের মধ্যে রয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের এক জওয়ান। শহিদ জওয়ান মুর্শিদাবাদ জেলার সাগরদিঘী থানার বোখরা গ্রামের মির মতিউর রহমান(৫০)। তিনি ছত্রিশগড়ে CRPF এর ASI পদে কর্মরত ছিলেন। মাওবাদীরা ওই হামলা চালিয়েছে বলে পুলিশ সূত্রে জানা গেছে। শনিবার বিকাল ৫টা নাগাদ ভোটমুখী ছত্তিশগড়ের বিজাপুরে ঘটনাটি ঘটেছে। সূত্রের খবর শনিবার এলাকায় তল্লাশি চালাতে বেরিয়েছিল CRPF-এর মুর্দানা ক্যাম্পের ১৬৮ নম্বর ব্যাটেলিয়ন। গাড়িতে ছিলেন ৬ জন জওয়ান। ক্যাম্প থেকে কয়েক কিলোমিটার যাওয়ার পরেই মাওবাদীরা একটি শক্তিশালী ল্যান্ডমাইন বিস্ফোরণ ঘটায়। আর এই বিস্ফোরনের কবলে পড়ে জওয়ানরা। জখম জওয়ানদেরকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য পাঠানো হয়। তাদের মধ্যে চারজন ঘটনাস্থলেই মারা যান। একজনের চিকিৎসা চলা কালীন মৃত্যু হয়। পরে মৃতদেহগুলি ঘটনাস্থান থেকে সরানো হয়েছে। উল্লেখ্য ১২ই নভেম্বর ছত্তিশগড়ে প্রথম দফার ভোট রয়েছে। ২০শে নভেম্বর দ্বিতীয় দফার।

        ১৯৮৮ সালে মীর মতিউর রহমান CRPF চাকরিরে যোগ দেন। এই বছর ঈদে তিনি বাড়িতে এসে প্রায় মাস দেড়েক ছিলেন। শনিবারের ঘটনার শোকের ছায়া গোটা এলাকা জুড়ে। বাড়িতে রয়েছে স্ত্রী সুমাইয়া বিবি, ছেলে মীর সাইদুল হক মেডিক্যাল নিয়ে পড়াশোনা করছেন। মেয়ে খদিজা পারভিনের বিয়ে হয়ে গেছে। পরিবারের এক মাত্র রোজগেড়ে ব্যাক্তি ছিলেন নিহত মীর মতিউর রহমান। ঘটনার কথা শোনার পরেই বাড়িতে কান্নার রোল পড়ে যায়। বয়স্ক মা আয়েসা বিবি এবং স্ত্রী সুমাইয়া খানুম ঘটনার কথা শোনার পরেই বারবার মুর্ছা যাচ্ছেন। ছেলে মীর সাইদুল ও মেয়ে খাদিজা পারভিন বাবার মৃত্যু খবর মেনে নিতে পারছেন না। এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। ঘটনার খবর পেয়ে জঙ্গীপুর সাংসদ অভিজিৎ মুখার্জী নিহত মীর মতিউরের বাড়িতে আসেন এবং জওয়ানের পরিবারের পাশে দাঁড়ান।

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট