প্রকাশ্যে বিজেপির গোষ্ঠী সংঘর্ষ


বৃহস্পতিবার,০৮/১১/২০১৮
57

বাংলা এক্সপ্রেস---

পশ্চিম মেদিনীপুর: শাসক দল তৃণমূলের পর এবার প্রকাশ্যে এল বিজেপির গোষ্ঠী সংঘর্ষ। মারধর করা হল ১৮৯ নং বুথের বিজেপির বুথ সভাপতি বিশ্বজিৎ রাউতকে। ঘটনা বেলদা থানার ১২ নং তুতরাঙ্গা অঞ্চলের। অভিযোগ বিনা অনুমতিতে বিজেপির স্বচ্ছ ভারত মিশন জেলা কমিটির সদস্য প্রসেনজিৎ দাস বুথে মিটিং করছিল। সেই মিটিং এ বাধা দিতে যান ১৮৯ নং বুথের বিজেপির বুথ সভাপতি বিশ্বজিৎ রাউত।

ফলে বুথ সভাপতি বিশ্বজিৎ রাউত এর সঙ্গে বিজেপির স্বচ্ছ ভারত মিশন জেলা কমিটির সদস্য প্রসেনজিৎ দাসের কথা কাটাকাটি, এবং একে অপরকে মারধর করে । মারধরের ফলে বুথ সভাপতি বিশ্বজিৎ রাউত আহত হন। এমনই অভিযোগ বিজেপির তুতরাঙ্গা অঞ্চলের ১৮৯ নং বুথের সভাপতি বিশ্বজিৎ রাউতের। প্রসঙ্গত মঙ্গলবার রাতে ওই বুথে কিছু জন কর্মী কে নিয়ে মিটিং করছিল প্রসেনজিৎ দাস। সেই মিটিং এ বাধা দিলে কাচের বোতল, রড, লাঠি দিয়ে মারধর করা হয়। মারধর করার পর স্থানীয়রা ও পরিবারের সদস্যরা বেলদা গ্রামীণ হাসপাতালে ভর্তি করে বিশ্বজিৎ রাউতকে।

অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে মেদিনীপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়। প্রকাশ্যে গোষ্ঠী দ্বন্দ্বের ঘটনায় এলে ও ,কিন্তু গোষ্ঠী দ্বন্দ্বের কথা অস্বীকারেন বুথ সভাপতি বিশ্বজিৎ রাউত। তিনি বলেন-“না জানিয়ে মিটিং করছিল প্রসেনজিৎ দাস।কিন্তু সেই মিটিং এ বাধা দিতে গেলে আক্রমন করে প্রসেনজিৎ। কিন্তু এলাকায় কোন গোষ্ঠী সংঘর্ষ নেই। বিজেপি দলের পদস্থ নেতা হয়ে কারোর মদতে সে এই আক্রমণ করে। থানায় মৌখিক অভিযোগ জানানো হয়েছে।” নিজেদের গোষ্ঠী সংঘর্ষে বিজেপি দলের মধ্যে একটা চড়া উত্তেজনা সৃষ্টি হয়েছে। মারধরের ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে ।

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

জানা অজানা

সাহিত্য / কবিতা

সম্পাদকীয়


ফেসবুক আপডেট