জনসন এর কোম্পানীর বিরূদ্ধে অভিযোগ


বৃহস্পতিবার,২০/১২/২০১৮
1116

বাংলা এক্সপ্রেস---

বাচ্চা থেকে বড়ো সকলেই বহু বছর ধরে চোখ বন্ধ করে জনসন এর সমস্ত সামগ্রী নিজেদের শিশুর জন্য ব্যবহার করে এসেছেন।তবে সম্প্রতি উঠে এসেছে একটি তথ্য জনসন এর বেবি পাউডার কি আদৌ আমার আপনার শিশুর জন্য সুরক্ষীত?অনেক বছর আগে জনসন সংস্থার বিরুদ্ধে এক অভিযোগ ওঠে যেখানে বলা হয় জনসন বেবি পাউডার ক্ষতিকারক অ্যাসবেস্টস যুক্ত।
জনসন অ্যান্ড জনসন সংস্থার বিরুদ্ধে আরও অভিযোগ যে তিন দশকেরও বেশি সময় ধরে তারা জানত এই তথ্য ৷ তার পরেও বাজারে ঢালাও বিক্রি হচ্ছে তাদের সেই বেবি পাউডার।

বুধবার মাদক পরীক্ষক সংস্থা এই বেবি পাউডারের নমুনা সংগ্রহ করে নিয়ে গিয়েছে। নমুনা সংগ্রহ করে দেখা হবে আদৌও পাউডারে অ্যাসবেস্টস রয়েছে কিনা। বুধবার মাদক নিরীক্ষণ সংস্থার ১০০ জন ইন্সপেক্টর সংস্থার বিভিন্ন ফ্যাক্টরি, পাইকারী বিক্রেতা এবং ডিস্ট্রিবিউটার্সের কাছে হানা দেয়। জনসন অ্যান্ড জনসনের পক্ষ থেকে বুধবারের অভিযান নিয়ে কোনও মন্তব্য করা হয়নি। গত শুক্রবার রয়টার্সের প্রতিবেদনটি প্রকাশিত হওয়ার পর জনসন অ্যান্ড জনসনের শেয়ারের দাম ১০ শতাংশ পড়ে গিয়েছে বিশ্বের বাজারে। যদিও রয়টার্সের এই রিপোর্টকে সম্পূর্ণ ভ্রান্ত এবং একপেশে বলে ঘোষণা করে জনসন অ্যান্ড জনসন জানিয়েছে, মোটা টাকার লোভে নথি বিকৃত করে আদালতকে বিভ্রান্ত করেছেন মামলাকারীরা। জনসন অ্যান্ড জনসনের বেবি পাউডার শিশুদের জন্য সুরক্ষিত এবং অ্যাসবেস্টস মুক্ত।

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

জানা অজানা

সাহিত্য / কবিতা

সম্পাদকীয়


ফেসবুক আপডেট