তিন বিধানসভা উপনির্বাচনে জোট বেঁধে লড়াই বাম কংগ্রেসের, যৌথ সাংবাদিক সম্মেলনে ঘোষণা বিমান বসু সোমেন মিত্রদের


বৃহস্পতিবার,৩১/১০/২০১৯
450

বুধবার রাতে জরুরিভিত্তিতে বৈঠকে বসলেন বামফ্রন্ট এবং কংগ্রেসের শীর্ষ নেতারা। আসন্ন তিনটি বিধানসভার উপনির্বাচন নিয়ে এই বৈঠকে আলোচনা হয়। সিদ্ধান্ত হয় তারা জোটবদ্ধভাবে লড়াই করবে। নির্বাচনী প্রচারও যৌথভাবেই হবে। কলকাতার ক্রান্তি প্রেসে এই বৈঠক বসেছিল। বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসু, সিপিএমের রাজ্য সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্র, প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি সোমেন মিত্র, কংগ্রেসের রাজ্যসভার সাংসদ প্রদীপ ভট্টাচার্যসহ বামফ্রন্ট ও কংগ্রেসের অন্যান্য শীর্ষ নেতৃবৃন্দ। বৈঠক শেষে যৌথ সাংবাদিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সাংবাদিক সম্মেলনে সোমেন মিত্র-বিমান বসুরা জানিয়ে দিয়েছেন তারা আসন সমঝোতা করে যেমন নির্বাচনী ময়দানে নামছেন সেইসঙ্গে নির্বাচনী প্রচারেও তারা যৌথভাবে অংশগ্রহণ করবে। বিজেপি ও তৃণমূলের বিরুদ্ধে কোমর বেঁধে ভোট ময়দানে নামছেন তারা।

জেলায় জেলায় বামফ্রন্ট এবং কংগ্রেসের নেতৃবৃন্দ জেলা গতভাবে নির্বাচনী রণকৌশল তৈরি করবে। উল্লেখ্য, করিমপুর, কালিয়াগঞ্জ ও খড়গপুর বিধানসভা আসনের উপ নির্বাচন। কংগ্রেস বিধায়ক প্রমথনাথ রায়ের মৃত্যুতে খালি হয়েছে কালিয়াগঞ্জ আসনটি। অপরদিকে করিমপুরের বিধায়িকা মহুয়া মৈত্র সাংসদ নির্বাচিত হওয়ার ফলে পদত্যাগ করায় এই আসনটি খালি হয়েছে। আর বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ সাংসদ নির্বাচিত হওয়ার ফলে পদত্যাগ করায় খড়গপুর আসনটি খালি হয়েছে। আগামী ২৫ নভেম্বর এই তিনটি বিধানসভা আসনে উপ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে চলেছে। বিধানচন্দ্র রায়ের জন্মদিনে আয়োজিত প্রদর্শনীতে বিধানভবনে উপস্থিত হয়ে কংগ্রেসের সঙ্গে জোটের বার্তা দিয়েছিলেন রাজ্য বামফ্রন্টের নেতারা।

বিগত লোকসভা নির্বাচনে ভরাডুবির জেরে লোকসভা নির্বাচনের জোট বা আসন সমঝোতা ভেস্তে যাওয়ার অতীত ভুলে এখন ফের জোট বদ্ধ হতে বদ্ধপরিকর বামেরা ও কংগ্রেস। বৃহস্পতিবার বিধান ভবনে বসছে প্রদেশ কংগ্রেসের নির্বাচনী কমিটির বৈঠকে। সূত্রের খবর, বৈঠকে বামেদের সঙ্গে সমঝোতা করে কিভাবে তিন আসনে প্রার্থী দেওয়া হবে এবং যৌথ সাংবাদিক সম্মেলন করে প্রার্থী ঘোষনা করে ঐক্যবদ্ধ জোটের বার্তা তুলে ধরার সিদ্ধান্তে সিলমোহর দেবেন প্রদেশ কংগ্রেসের শীর্ষ নেতারা। বামফ্রন্ট ও কংগ্রেসের নেতারা যৌথভাবে আসন্ন উপ নির্বাচনে প্রার্থী ঘোষনা করুক এমনটাই চাইছেন এই দুই দলের নিচুতলার কর্মীরা। প্রসঙ্গত, প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি সোমেন মিত্র সম্প্রতি বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসুকে ফোনে ও চিঠি লিখে দ্রুত সিদ্ধান্ত নেওয়ার আর্জি জানিয়েছিলেন। দুই দলই তৎপর হয়েঐক্যবদ্ধ জোটের বার্তা তুলে ধরল বুধবার রাতে।

বাম ও কংগ্রেসের এই জোট প্রক্রিয়া ও ঐক্যবদ্ধ লড়াইয়ের প্রয়াসকে কটাক্ষে বিঁধেছেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তিনি এই জোটকে চিড়িয়াখানার সঙ্গে তুলনা টেনে তোপ দেগেছেন। একইসঙ্গে একহাত নিয়েছেন বাম ও কংগ্রেসকে।তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে রাজ্যে লড়াইয়ের ডাক দিয়ে রাজনীতির ময়দানে সক্রিয় ভূমিকা পালন করে নিজেদের পালে হাওয়া কাড়তে তৎপর বিজেপির পাশাপাশি বাম ও কংগ্রেসও। আর এর প্রেক্ষিতে দিলীপ ঘোষের বাম ও কংগ্রেসের জোটের প্রয়াসকে আক্রমণের মাধ্যমে রাজ্য রাজনীতিতে আগামীদিনে বাম ও কংগ্রেস বনাম বিজেপির বাক বিতন্ডার ক্ষেত্র তৈরি হল বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল।

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট