কী কী রয়েছে সংস্কৃত বিশ্ববিদ্যালয়ের থেকে উদ্ধার হওয়া সেই সিন্দুকে


শনিবার,৩০/১১/২০১৯
231

বাংলা এক্সপ্রেস ডিজিটাল ডেস্ক ; ---

বেশ কয়েকঘন্টার প্রচেষ্টায় অবশেষে শুক্রবার খোলা গেল সংস্কৃত বিশ্ববিদ্যালয়ের সুপ্রাচীন সিন্দুক। সিন্দুকের ভিতরে কি রয়েছে তা নিয়ে কৌতূহলের পারদ চরছিল আমজনতার মনে। এদিন সিন্দুক থেকে উদ্ধার হল বিদ্যাসগারের বিধবা ভাতা সংক্রান্ত নথি থেকে মেডেল, প্রাক স্বাধীনতা সময়কালের সম্পত্তির কাগজপত্র এবং সিল করা সাত-সাতটি খাম। তবে তার মধ্যে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হল ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগরের তৈরি বিধবাদের জন্য তৈরি ফান্ডের নথি।শুক্রবার বেলা ১২ টার আগে থেকে পুরনো সিন্দুকটি খোলার চেষ্টা চলে। চাবি তৈরি করেও তা খোলা যায়নি। চার ঘণ্টার চেষ্টায় শেষমেশ তা খোলে।

 

সুত্রের খবর সিন্দুকগুলির বয়স প্রায় ২০০ বছর,পাশাপাশি সুপ্রাচীন এই সিন্দুক থেকে মুল্যবান নথি পাওয়া যাবে তাঁর আঁচ পাওয়া গিয়েছিল অনেক আগে থেকেই। এই সংস্কৃত কলেজ ছিল বিদ্যাসাগর মহাশয়ের অন্যতম প্রধান কর্মক্ষেত্র। এছাড়া ভারতের নবজাগরনের অন্যতম প্রাণপুরুষ ছিলেন তিনি। এছাড়া তাঁর আমলেই বিধবা বিবাহ আইন পাস হয়েছিল। তবে এবার সংস্কৃত বিশ্ববিদ্যালয় এর গোডাউন থেকে পাওয়া গেল সুপ্রাচীন সিন্দুক। সেই সিন্দুক থেকে মিলেছে সুপ্রাচীন নথি ও গুরুত্বপুর্ন কাগজপত্র।

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

জানা অজানা

সাহিত্য / কবিতা

সম্পাদকীয়


ফেসবুক আপডেট