টানা হবে না গোপীবল্লভপুরের প্রাচীন রথ, মন্দির প্রাঙ্গণেই তৈরি হচ্ছে মাসির বাড়ি 


সোমবার,২২/০৬/২০২০
313

ঝাড়গ্রাম: চারশো বছরের প্রাচীন গোপীবল্লভপুরের রথযাত্রা এবার হচ্ছে না। কাপাসিয়া এলাকায় মাসির বাড়িও যাবেন না জগন্নাথ, বলরাম ও সুভদ্রা। মন্দির প্রাঙ্গণের মধ্যেই তৈরি হচ্ছে মাসির বাড়ি। সেখানেই উল্টোরথ পর্যন্ত সকলে থাকবেন।

জনশ্রুতি আছে, বৈষ্ণবসাধনক্ষেত্র গোপীবল্লভপুরের রথযাত্রা উৎসব সুষ্ঠুভাবে পালনের জন্য একসময় প্রতি বছর স্বর্ণমুদ্রা পাঠাতেন মোগল সম্রাট জাহাঙ্গির। গোপীবল্লভপুর বৈষ্ণবক্ষেত্রের প্রতিষ্ঠাতা বৃন্দাবনের পরম বৈষ্ণব শ্যামানন্দ গোস্বামী। তাঁর উদ্যোগেই আনুমানিক ১৬২০ খ্রিস্টাব্দে গোপীবল্লভপুর রথযাত্রা উৎসবের সূচনা হয়। গোপীবল্লভপুরের আগের নাম ছিল কাশীপুর। সেই নাম পরিবর্তন করে গোপীবল্লভপুর নামটি রাখেন শ্যামানন্দই। তিনি এখানে কৃষ্ণের মন্দির প্রতিষ্ঠা করেন। সেই মন্দিরের নাম হয় রাধাগোবিন্দজিউ মন্দির। সপ্তদশ শতকে উল্লেখযোগ্য বৈষ্ণবক্ষেত্র হিসাবে গোপীবল্লভপুর পরিচিতি লাভ করে। তখন এলাকাটি ওড়িশার ময়ূরভঞ্জের রাজার অধীনে ছিল।

গোপীবল্লভপুরে বর্তমান মহন্ত কৃষ্ণকেশবানন্দ দেবগোস্বামী বলেন, এই রথ পশ্চিমবঙ্গের মধ্যে দ্বিতীয় প্রাচীনতম রথ। সামাজিক দূরত্ববিধি মেনে এবার রথ টানা হবে বলে ঠিক করা হয়েছিল। শুধুমাত্র মন্দিরের সেবকরাই রথ টানতেন। কিন্তু পুলিস-প্রশাসন অনুমতি দেয়নি।

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট