ঝাড়গ্রামে ক্রিকেট মাঠে গুলি চালানোর ঘটনায় অভিযুক্ত এনভিএফ কর্মী গ্রেফতার


বৃহস্পতিবার,১০/১২/২০২০
203

ঝাড়গ্রাম : ঝাড়গ্রামে ক্রিকেট খেলার মাঠে গুলি চালানোর ঘটনায় মূল অভিযুক্ত এনভিএফ কর্মী বিশ্বজিৎ প্রধান ( নেড়া ) এবং শুভঙ্কর সাউ (লিপি) কে গ্রেফতার করে এদিন ঝাড়গ্রাম আদালতে তোলা হয় । অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে খুন এবং অস্ত্র আইনে ৩০২, ৩৪, ২৫ ,২৭ ধারায় মামলা রুজু করে ঝাড়গ্রাম থানার পুলিশ । আদালতে তোলা হলে পুলিশের পক্ষ থেকে ১০ দিনের পুলিশ হেফাজত চাওয়া হলে বিচারক ৮ দিনের পুলিশ হেফাজত মঞ্জুর করে । জানাযায় , গুলি করে খুনের ঘটনায় মোট তিন জনের বিরুদ্ধে এফআইআর হয়েছে । যার মধ্যেই দুই জনকে গ্রেফতার করে আদালতে তোলা হলেও অপর একজন অভিযুক্ত বিশ্বজিৎ প্রধানের বাবা মনি প্রধান এখনো ফেরার ।

গুলি চালানোর ঘটনায় অভিযুক্ত এনভিএফ কর্মী বিশ্বজিৎ প্রধান ( নেড়া ) কে গ্রেফতারের দাবিতে বুধবার সকাল থেকেই ঝাড়গ্রাম শহর লাগোয়া রাধানগর মোড়ে ঝাড়গ্রাম মেদিনীপুর রাস্তায় অবরোধ শুরু করেছিল নিহত তকবির আলীর পরিজনের । অবরোধ তোলার জন্য ঝাড়গ্রাম পুলিশ সুপার অমিত কুমার ভরত রাঠোর অবরোধস্থলে গিয়ে অভিযুক্তদের ৭২ ঘটনার মধ্যে গ্রেফতার করার কথা বলেন । তারপরেই অবরোধ তুলে নেন তকবির আলীর পরিবারের লোকজন । জানা যায় , মূল অভিযুক্ত এনভিএফ কর্মী বিশ্বজিৎ প্রধান কে উড়িষ্যা বর্ডার লাগোয়া হাতিবাড়ি এলাকায় নাকা চেকিং এর মাধ্যমে গ্রেফতার করা হয় এবং এই ঘটনায় অপর অভিযুক্ত শুভঙ্কর সাউ কে লোধাশুলি কাছে ছয় নম্বর জাতীয় সড়কে  গ্রেফতার করা হয় ।

গতকাল দুপুর প্রায় সাড়ে বারোটা নাগাদ ঝাড়গ্রামের ২ নম্বর ওয়ার্ডের বাছুর এলাকায় একটি ক্রিকেট খেলা দেখতে এসে দর্শক আসনে থাকা রাধানগর গ্রাম পঞ্চায়েতের রাধানগর গ্রামের বাসিন্দা ২৮ বছরের যুবক তকবির আলী । অভিযোগ  তকবির কে দুটো হাতে দুটো বন্দুক নিয়ে হঠাৎ গুলি করে বাছুরডোবা এলাকার বাসিন্দা বিশ্বজিৎ প্রধান নামে মেদিনীপুর পুলিশ লাইনে কর্তব্যরত এক এনভিএফ কর্মী । তকবির কে একটি পায়ে ও একটি মাথার কাছে গুলি করা হয় এবং লোহার রোড দিয়ে  মাথা থেতলে দেওয়ার অভিযোগ ওঠে বিশ্বজিৎ এর বিরুদ্ধে । তকবির কে উদ্ধার করে ঝাড়গ্রাম সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে নিয়ে  গেলে তাঁর অবস্থা আশঙ্কাজনক থাকায় তাঁকে কলকাতা স্থানতর করা হয় । ঝাড়গ্রাম থেকে কলকাতা নিয়ে যাওয়ার পথে রাস্তায় মৃত্যু হয় তকবির এর । মৃত্যুর খবর রটতেই রণক্ষেত্রের চেহারা নেই ঝাড়গ্রামের বাছুরডোবা এলাকা । তকবির এর পরিবার লোকজন বিশ্বজিৎ এর বাড়ী ভাঙচুর করে আগুন ধরিয়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠে । ঘটনাস্থলে পৌঁছায় বিশাল পুলিশবাহিনী ও দমকল বাহিনী । পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে পুলিশ ।

এদিন সকালে তকবির এর পরিবারের সাথে দেখা করেন তৃণমূলের রাজ্য সম্পাদক ছত্রধর মাহাত ।

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট