ত্রিপুরায় পড়ুয়াদের অবরোধ তুললেন অভিষেক


সোমবার,০২/০৮/২০২১
410

প্রধান শিক্ষকের বদলি প্রতিবাদে ছাত্রছাত্রীরা জাতীয় সড়কে অবরোধে। প্রথমবার ত্রিপুরা সফরে এসে এমন অভিজ্ঞতার মুখে পড়লেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। এই দাবিকে সমর্থন করে পাশে থাকার আশ্বাস দিলেন তিনি।আর সেই সঙ্গে পড়ুয়াদের মন জিতলেন অভিষেক।

প্রতিবেশী রাজ্য ত্রিপুরায় দলকে শক্তিশালী করতে এবং ২৩ এর বিধানসভা নির্বাচনে ক্ষমতায় আসার লক্ষ্যে সর্বশক্তি নিয়ে আসরে নেমেছে তৃণমূল কংগ্রেস। সোমবার ত্রিপুরা সফরে আসেন দলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। আগরতলায় পা রেখেই তিনি সোজা চলে যান ত্রিপুরেশ্বরী মন্দিরে পুজো দিতে। ফেরার পথে সাব্রুম-আগরতলা জাতীয় সড়কে অভিষেকের কনভয় থমকে যায় পড়ুয়াদের অবরোধের মুখে। এই কোভিড পরিস্থিতিতে কেন পড়ুয়ারা রাস্তায়? গাড়ি থেকে নেমে পড়ুয়াদের সঙ্গে কথা বলতে সোজা এগিয়ে যান তৃণমূল কংগ্রেসের এই সর্বভারতীয় নেতা। পড়ুয়াদের সঙ্গে কথা বলে তিনি জানতে পারেন, বিশালগড় পূর্ব গকুলনগর উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীরা এই অবরোধে সামিল। একটাই দাবি, স্কুলের প্রিয় প্রধান শিক্ষককে কোথাও বদলি করা যাবে না। স্কুলের উন্নয়ন পরিকাঠামোর পিছনে প্রধান শিক্ষকের অবদান রয়েছে। এমনকি ছাত্র-ছাত্রীদের কাছেও স্কুলের প্রধান শিক্ষক অত্যন্ত প্রিয়। কিন্তু হঠাৎ স্কুলের প্রধান শিক্ষকের বদলির নির্দেশ আসায় ছাত্রছাত্রীরা কোনোভাবেই মেনে নিতে পারছে না। অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় কথা দেন পড়ুয়াদের পাশে তিনি আছেন। পড়ুয়াদের দাবিকেও নায্য দাবি বলে জানান তিনি। তবে এই কঠিন পরিস্থিতিতে স্বাস্থ্যের কথা মাথায় রেখে তাদের অবরোধ তুলে নেওয়ার আবেদন জানান।

পড়ুয়াদের অবরোধের জেরে জাতীয় সড়কে শয়ে শয়ে গাড়ি আটকে পড়ে। অবরোধ তুলতে বিশালগড় থানার ওসি সহ বিশাল পুলিশ ও টিএসআর বাহিনী পৌঁছায়। পুলিশের আবেদনে কাজ হয়নি। পড়ুয়ারা অনড় তাদের প্রতিবাদে। তৃণমূল কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় তাদের দাবিকে সমর্থন করায় এবং পাশে থাকার আশ্বাস দেয়ার পর পড়ুয়ারা নরম হয়। তুলে নেওয়া হয় অবরোধ। প্রথম বারের জন্য ত্রিপুরা সফরে এসেই পড়ুয়াদের মন জয় করে নিলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়।

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট