মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হয়ে উপনির্বাচনের প্রচারে নামলেন ফিরহাদ হাকিম


রবিবার,১২/০৯/২০২১
618

রবিবারসীয় সকালবেলা ৮২ নম্বর ওয়ার্ডে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হয়ে উপনির্বাচনের প্রচারে নামলেন কলকাতা পুরসভার মুখ্য প্রশাসক তথা রাজ্যের মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম ।প্রচার শেষে তিনি সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে জানান এদিন সকাল বেলা দিলীপ ঘোষ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সম্পর্কে যে কথা বলেছেন অর্থাৎ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় পেছনের দরজা দিয়ে মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন সেই কথার জবাব দিলেন ফিরহাদ হাকিম। তিনি জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ইতিমধ্যে 213 জায়গায় জয়ী হয়েছেন। এমনকি ফিরহাদ হাকিম যে বিপুল ভোটে জয়ী হয়েছেন তাও মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এর জন্যই। তাই দিলীপ ঘোষ কি বলল তাতে কোন কিছু যায় আসে না। 30 শে সেপ্টেম্বর ভবানীপুরে উপনির্বাচন আছে তাতে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বিপুল ভোটে জয় যুক্ত হবেন। পাশাপাশি তিনি জানান নন্দীগ্রামের যে ঘটনা ঘটেছিল সেখানে কারচুপি হয়েছিল। তার মাধ্যমে শুভেন্দু অধিকারী জয়ী হয়েছিল। অন্যদিকে তাঁকে জিজ্ঞাসা করা হয় বারবার করে ত্রিপুরা যাচ্ছেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। সেই প্রসঙ্গে দিলীপ ঘোষ জানিয়েছেন যারা এখানে ঠাঁই পাচ্ছে না তাঁরা ত্রিপুরা যাচ্ছেন সেই প্রসঙ্গে ফিরহাদ হাকিম জানিয়েছেন শুধু ত্রিপুরা নয় এরপর ইউপি তারপর গোটা ভারত বর্ষ যাবে তৃণমূল কংগ্রেস। সারা ভারতবর্ষের তৃণমূল কংগ্রেস জয়ী হবে এবং রাজত্ব করবে বলেও জানিয়েছেন ফিরহাদ হাকিম এবং তখন দিলীপ ঘোষের অবস্থা কী হবে তাও একবার বর্ণনা করেছেন ফিরহাদ হাকিম। তিনি জানিয়েছেন সেইসময় দিলীপ ঘোষের কোন পদ থাকবে কিনা জানিনা। কিন্তু তাকে সাদরে রাখা হবে ।কারণ তিনি একসময় কোন একটি দলের প্রধান ছিলেন। তাই দিলীপ ঘোষের ভয় পাওয়ার কোন কারণ নেই বলে তিনি জানিয়েছেন। ভবানীপুরে উপনির্বাচনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে বামপন্থী এবং বিজেপির পক্ষ থেকে দুজন ব্যক্তিকে দাঁড় করানো হয়েছে।

সেই প্রসঙ্গে ফিরহাদ হাকিমকে জিজ্ঞেস করা হলে তিনি জানিয়েছেন কি করা হবে যদি কোন নামি ব্যক্তির দাঁড়াতে না চান। তখন সেই দল কিছু করতে পারে না। কাউকে না কাউকে দাঁড় করাতে হবে ।তাই বিজেপির পক্ষ থেকে একটি বাচ্চা মেয়েকে দাঁড় করানো হয়েছে। তার প্রতি শুভকামনা জানিয়েছেন ফিরহাদ হাকিম এবং বামেদের তরফ থেকে যিনি দাঁড়িয়ে আছেন সেখানে বলেছেন বামেরা এখন আছে কি নেই তাদের মাথায় মাখে না কি করে সে ব্যাপারে কারো জানা নেই ।অন্যদিকে করোনার সংক্রমণ আরো বেড়েছে বলে প্রশ্ন করা হলে ফিরহাদ হাকিমকে তিনি জানিয়েছেন কলকাতা পৌরসভার অন্তর্গত বেশ কয়েকটা জায়গায় করোনা বেড়েছে। কিন্তু তাদের মধ্যে করোনার কোন উপসর্গ নেই। তবে সব রকম ভাবে চেষ্টা করা হচ্ছে কলকাতা পৌরসভার পক্ষ থেকে যাতে করোনা কোন ভাবে না ছড়ায়।

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট