গৃহবধূকে আগুন লাগিয়ে খুন করার অভিযোগ উঠল স্বামীর বিরুদ্ধে


মঙ্গলবার,০৩/১১/২০১৫
316

পরিতোষ বর্মণঃ    এক গৃহবধূকে শ্বাসরোধ ও আগুন লাগিয়ে খুন করে মৃতদেহকে কবর দেওয়ার অভিযোগ উঠলো স্বামী সহ শ্বশুরবাড়ির বিরুদ্ধে। ঘটনায় স্বামী ও শ্বশুর গ্রেফতার। দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার কুশমন্ডি ব্লকের মালিহার গ্রামের ঘটনা। গৃহবধূর বাপের বাড়ির দায়ের করা অভিযোগের ভিত্তিতেই মঙ্গলবার মৃতদেহটি কবর থেকে তুলে ময়নাতদন্তে পাঠাল কুশমন্ডি থানার পুলিশ। মৃত ওই গৃহবধূর নাম জাসমিন বিবি। জানা গিয়েছে, মাস চারেক আগে হরিরামপুর থানার বগুলাহার এলাকার খুশ মহম্মদের মেয়ে জাসমিন বিবির সঙ্গে কুশমন্ডির থানার মালিহার এলাকার কাসেম আলির ছেলে মকলেসুর রহমানের বিয়ে হয়। অভিযোগ, কয়েকদিন আগে জাসমিন বিবি হৃদরোগে মারা গিয়েছেন বলে তাঁর বাপের বাড়িতে খবর দেয় শ্বশুরবাড়ির লোকজন। সেদিন মৃত্যুর অন্য কোন কারণ চোখের সামনে না আসায় শ্বশুর বাড়ির দেখানো কারণকেই সঠিক মনে করে মেয়েকে কবর দেওয়ার নির্দেশ দেন খুশ মহম্মদ। তবে ঘটনার পর সোমবার রাতে লোকমুখে মেয়েকে খুন করা হয়েছে বলে জানতে পারেন তিনি। ধর্মীয় নিয়ম অনুসারে মৃতদেহ কবর দেওয়ার আগে স্নান করানোর সময় জাসমিনের শরীরে একাধিক ক্ষতের চিহ্ন দেখেছিলেন কেউ কেউ। তাদের মধ্যেই কেউ একজন সোমবার তাকে খবর দেন বলে দাবি করেন খুশ মহম্মদ। এরপরই মঙ্গলবার সকালে কুশমন্ডি থানায় জাসমিন বিবির শ্বশুর বাড়ির লোকদের বিরুদ্ধে খুনের মামলা দায়ের করআ হয়। প্রশাসনিক স্তরে ঘটনা জানাজানির পর বিডিও অমূল্য সরকারের উপস্থিতিতে কুশমন্ডি থানার পুলিশ মৃতদেহ কবর থেকে তুলে ময়নাতদন্তে পাঠায় । অন্যদিকে চাপের মুখে পড়ে জাসমিন বিবিকে খুন করার কথা স্বীকার করেন অভিযুক্ত স্বামী সহ শ্বশুর বাড়ির বাকি সদস্যরা। অভিযোগ স্বীকার করায় মৃতার স্বামী মকলেসুর রহমান ও শ্বশুর কাসেম আলিকে গ্রেফতার করেছে কুশমন্ডি থানার পুলিশ। Paritosh Barman_photo

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট