ক্যান্সার চিকিৎসায় এনআরএস হসপিটালে বহু কোটি টাকা ব্যয়ে নতুন মেশিন বসাল সরকার


শনিবার,১৭/১১/২০১৮
558

বাংলা এক্সপ্রেস---

কলকাতা: এন আর এসের রেডিওথেরাপি ডিপার্টমেন্টের যেখানে ক্যান্সার এর প্রধানত চিকিৎসা হয়। তাতে কয়েকমাস আগে মুখ্যমন্ত্রীর প্রচেষ্টায় স্বাস্থ্য পরিষেবার উন্নতির প্রসারে দুটি অত্যাধুনিক রেডিয়েশন মেশিন বসানো হয় যার এক একটির মূল্য 25 কোটি। নাম হলো লিনিয়ার এক্সিলারাটার, মডেলের নাম ট্রু বিম। লক্ষ্য একটাই যাতে এ রাজ্যের ক্যান্সার পীড়িত মানুষ কে হন্যে হয়ে ভিন রাজ্যে বা মুম্বাই টাটা ইনস্টিটিউটে যেতে না হয়। তার সাথে বাইরে প্রাইভেটে পরিষেবা পেতে সাধ্যহীন খরচ তো আছেই।

আগে এন আর এসে এই রেডিয়েশন একমাত্র টেলিকোবাল্ট থেরাট্র্রণ নামক মেশিন দ্বারা প্রদান করা হতো, যা আধুনিক যুগের মেশিনের থেকে অনেকটাই পিছিয়ে। তাছাড়া ক্যানসার পীড়িত কোষ ছাড়াও এই মেশিনের রেডিয়েশন দেহের অন্যান্য কোষেও প্রভাব ফেলে দিতো যেটা অত্যাধুনিক মেশিনে শুধুমাত্র টার্গেট করা কোষ গুলোকেই রেডিয়েশন দেয়া সম্ভব। এছাড়া এই নতুন মেশিন দুটির প্রতিস্থাপনের সাথে সাথে পুরো ডিপার্টমেন্টের দ্বিতল কে এমন ঝা চকচকে ভাবে সাজানো হয়েছে যা সরকারি পরিসেবায় কল্পনাতীত এবং প্রাইভেট বা কর্পোরেট পরিষেবা কেও মাত দেবার মত।

এই অত্যাধুনিক মেশিনের দ্বারা পরিষেবা যেখানে ভারতবর্ষের হাতে গোনা কয়েকটি বেসরকারী প্রতিষ্ঠানে পেতে 10 লক্ষাধিক টাকা খরচ হয়, সেখানে সাধারণ মানুষের জন্য এই পরিষেবা আগামী কাল 16ই নভেম্বর থেকে বিনা পয়সায় উপলব্ধ করানো হবে। এটা মধ্যবিত্ত, উচ্চ মধ্যবিত্ত, নিম্নবিত্ত ক্যান্সার পীড়িত মানুষের কাছে স্বপ্ন পূরণের থেকে কম কিছু নয়।

এই মেশিন রাজ্য সরকারি আরো দুটি হাসপাতালে বসানো হলেও এক সময়ের এন আর এসের প্রফেসর ও হেড সুবীর গাঙ্গুলী মহাশয়ের স্বপ্নের বাস্তবায়নের ফলপ্রসূ এই রেডিওথেরাপি ডিপার্টমেন্টে এই অত্যাধুনিক মেশিন দুটি চালু করতে লেগে যায় প্রয়োজনাতিরিক্ত সময়। এর পিছনে অন্তর্ঘাতের গন্ধও পাওয়া গেছে। মাত্র কয়েকদিন আগে এই মেশিনের লক্ষাধিক টাকা মূল্যের ক্যাপ টি ভেঙে ফেলে কোনো স্টাফ, এমনকি মেশিনের সমস্ত ডাটা ও মুছে ফেলা হয়। অভিযোগের ভিত্তিতে এন আর এসের প্রিন্সিপাল এই বিষয় টি স্বাস্থ্য ভবনের নজরে আনেন এবং একটি তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়। আসলে এই মেশিন সরকারি পরিসেবায় চালু হলে অনেক বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের ঝাঁপ পড়বে তার জন্যই এই অন্তর্ঘাত বলে জানা গেছে। সকলের আশা এই মেশিন আগামী দিনে মুখ্যমন্ত্রীর স্বাস্থ্য পরিষেবা উন্নয়নের স্বপ্ন পূরণ করবে।

বর্তমানে এই ডিপার্টমেন্টের প্রমুখ প্রফেসর সজল ঘোষ

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট