পঞ্চায়েত সমিতির কর্মাধ্যক্ষ গঠন ঘিরে ধুন্ধুমার দাঁতন ২ ব্লক, পথ অবরোধ ধনেশ্বরপুরে


মঙ্গলবার,২০/১১/২০১৮
300

বাংলা এক্সপ্রেস---

পশ্চিম মেদিনীপুর: পঞ্চায়েত সমিতির স্থায়ী কর্মাধ্যক্ষ নির্নয় ঘুরে উত্তপ্ত দাঁতন ২ ব্লক।বেলদা থানার ধনেশ্বরপুরের কাছে পথ অবরোধ নির্বাচিত পঞ্চায়েত সমিতির প্রার্থি ইফতেকার আলির অনুগামীদের।প্রসঙ্গত দাঁতন ২ নম্বর ব্লকের নির্দল প্রার্থী হিসাবে তৃণমূলের মনোনীত প্রার্থী কে বিপুল ভোটের ব্যবধানে হারিয়ে জয় যুক্ত হন ইফতেখার আলী । তবে ভোট প্রক্রিয়ার পরেই তৃণমূল দলের পদস্থ নেতৃত্বের আওহানে নির্দল প্রার্থী থেকে তৃণমূলে যোগদান করেন তিনি এবং ব্লক সভাপতি হিসাবে নির্বাচিত হন দুর্গেশ নন্দ।

সূত্রের খবর ব্লক তৃণমূল থেকে ইফতেকার আলিকে পঞ্চায়েত সমিতির কর্মাধ্যক্ষ নির্বাচিত করা হবে বলে মনোনীত ছিলেন।সেইমত আজ দাঁতন ২ ব্লকের পঞ্চায়েত সমিতি গঠনে উপস্থিত হয়ে ইফতেকার আলি উপলব্ধি করেন যে তার নির্বাচিত পদটি বাতিল করা হয়েছে।পাশাপাশি জানতে পারেন এই পদ পরিবর্তনের পেছনে তৃণমূল দলেরই ব্লক সভাপতি দুর্গেশ নন্দের হাত রয়েছে। এই সিদ্ধান্ত মেনে না নিয়ে ইফতেকার আলি ও তার অনুগামীরা বেলদা দীঘা রাজ্যসড়ক অবরুদ্ধ করে। ফলে দীর্ঘক্ষন রাস্তার দুপাশে দাঁড়িয়ে পড়ে একাধিক গাড়ি। বেশ কিছুক্ষন স্তব্ধ হয়ে পড়ে যান চলাচল। ঘটনাস্থলে পৌঁছায় জোড়াগেড়িয়া ফাঁড়ি ও বেলদা থানার বিশাল পুলিশবাহিনী।

সেক ইফতেকার আলি জানান-“দূর্নীতির বিরুদ্ধে আমরা ভোটের লড়াইয়ে নেমেছিলাম। দুর্গেশ নন্দ তার দূর্নীতি ধরা পড়ে যাওয়ার ভয়ে পদ দেয়নি তাই নির্দল হয়ে দাঁড়িয়ে বিপুল ভোট পেয়েছিলাম। কিন্তু ব্লক সভাপতি দুর্গেশ নন্দ জেলার নির্দেশ অমান্য করছে এলাকায় গোষ্ঠী সৃষ্টি করছে,দূর্নীতি করতে চাইছে। আজ ও গিয়ে দেখালাম একই অবস্থা তাই আমার আনুগামীরা এই সিদ্ধান্ত নেয়। জেলার নির্দেশ মত অবরোধ তুলে নেওয়া হয় এবং জনস্বাস্থ্য পদে নির্বাচন স্তগিত রয়েছে।”

জানা গিয়েছে সোমবার রাত্রে এক মুখ বন্ধ খামে স্থায়ি কর্মাধ্যক্ষের নাম আসে। কিন্তু জেলার কোন নির্দেশ না শুনে ব্লক সভাপতি একক উদ্যোগে সব পরিবর্তন করেছে। ফলে রাস্তা অবরোধের সিদ্ধান্ত নেয় ইফতেকার আলি ও তার অনুগামীরা।পরে ফোনে তৃণমূল দলের উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশমত এবং ব্লক প্রশানের কথা মত তিনি অবরোধ তুলে নেন। নিজে দাঁড়িয়ে যান চলাচল নিয়ন্ত্রন করেন। সুত্রের খবর, দাঁতন ২ ব্লকের এই জনস্বাস্থ্য কর্মাধ্যক্ষ পদ গঠন প্রক্রিয়া বন্ধ থাকবে। অবরোধ উঠে গেলেও এলাকায় উত্তেজনা রয়েছে। পদ নিয়ে তৃণমূল-তৃণমূল এর মধ্যেমত বিরোধ এবং পথ অবরোধ,তবে কি ব্লকে গোষ্ঠী তৈরি হচ্ছে এমনই কিন্তু মত বিরোধী দলের। তবে এই প্রসঙ্গে কোন মন্তব্য পাওয়া যায়নি ব্লক সভাপতি দুর্গেশ নন্দের ।

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট