মকরের পরবে মেতেছে ঝাড়গ্রাম


রবিবার,১৩/০১/২০১৯
558

কার্ত্তিক গুহ---

ঝাড়গ্রামঃ ঝাড়্গ্রাম জেলায় পৌষ সংক্রান্তির দিন এক বিশেষ পরব হয়। মকর পরব বা টুসু পরব নামে পরিচিত। মকরের পরবের জন্য ইতিমধ্যেই টুসু বেচা কেনা শুরু হয়ে গিয়েছে বিভিন্ন জায়গায়। টুসু উৎসবের শেষ চারদিন চাউড়ি, বাউড়ি, মকর, আখান বলা হয়। চাউড়ির দিন ঘরের মেয়েরা উঠোন গোবর দিয়ে নিকিয়ে চালের গুঁড়ো তৈরি করে। বাউড়ির দিন সেই চালের গুঁড়ো দিয়ে নানারকম পিঠা তৈরি করে।

মকরের ভোরের আলোয় টুসুকে বাঁশ কিংবা কাঠ নির্মিত নানা রকমের সুন্দর সাজ বাহারের চতুরদোলাতে বসিয়ে সব মেয়েরা সারি করে বিসর্জন দিতে যায়। বিসর্জন এর পরে মেয়েরা ওই জলে স্নান করে নতুন কাপড় পরে। আগামী ১৫জানুয়ারী মকর পরব। সকাল থেকে গাঁয়ে উৎসবের মেজাযে মাতবে ঝাড়্গ্রাম বাসী। সব বৌ ঝিরা একসাথে যায় নদীতে স্নান করতে। হাতে টুসু ঠাকুর নিয়ে সকলে একসাথে অনেক ধরনের গান গায় তার মধ্যে অন্যতম —– “ই পরবে টুসুকে দিব লাল শাড়ি,জানি টুসু আইসবে মোর বাড়ি।

খোঁপায় দিব রূপার কাঁটা টুসু আমার পরবে জুতা বাটা মকর মকর মকর পরবে সেজে গুজে হাঁটবে টুসু গরবে মকর মকর মকর পরবে।” চারদিনের মকর দিন অর্থাৎ শেষ দিন গোপীবল্লভপুরের সূবর্নরেখা নদীর তীরে অসংখ্য মানুষ কে স্নান করতে দেখা যায়। ওইদিন গোপীবল্লভপুরে অনুষ্ঠিত হয় বুলবুলি পাখির লড়াই। নানান জায়গা থেকে লোক আসেন এই বুলবুলি পাখির লড়াই দেখার জন্য।

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট