সিপিএমের পতাকা কেন খুললেন? অভিযুক্ত তৃণমূল নেতা-কর্মীদের বাড়ীতে বিকাশের কৈফিয়ত


সোমবার,০৬/০৫/২০১৯
430

সাদ্দাম হোসেন মিদ্দে, ---

 

বাংলা এক্সপ্রেস ডেক্স, যাদবপুর :ভাঙড়ে সিপিআইএমের পতাকা খুলে ফেলার অভিযোগ।অভিযোগের তীর তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে। আরাবুল -কাইজারদের খাস তালুক তৃণমূল কর্মীদের বাড়ীতে সটান যাদবপুরের বাম প্রার্থী তথা সিপিআইএম নেতা বিকাশ রঞ্জন ভট্টাচার্য। প্রশ্ন কেন খুলে ফেলা হল আমাদের পতাকা?

ঘটনা ভাঙড় ১এ ব্লকের প্রাণগঞ্জ অঞ্চলের মরিচা গ্রামের। কিছুদিন আগে তৃণমূল  কর্মীরা  পতাকা খুলে নেয় বলে স্থানীয় সিপিআইএম কর্মীরা জানিয়ে ছিলেন বিকাশ রঞ্জন ভট্টাচার্যকে। শনিবার নারায়ণপুর অঞ্চলের পাগলাহাট বাজারে বাসন্তী হাইওয়েরে পাশে পথসভা করার কথা ছিল যাদবপুরের বামপ্রার্থীর। পথসভা সেরে হওয়য়ার কথা ছিল কর্মীসভা। কিন্ত তার মাঝখানে বিকাশ রঞ্জন সটান চলে যান মরিচা গ্রামে। সেখানে গিয়ে স্থানীয় বামকর্মী সমর্থকদের কাছে জানতে চান কে পতাকা খুলেছে? তাদের বাড়ী কোথায়?

এদিন তাঁর সঙ্গে ছিলনা কোন নিরাপত্তা রক্ষী বা পুলিশ।কার্যত ফিল্মি কায়দায় গাড়ী থেকে নেমে সোজা চলে যান তৃণমূল কর্মীদের বাড়ীতে। স্থানীয় বামকর্মীরা বিকাশ রঞ্জন ভট্টাচার্যকে তৃণমূল কর্মীদের বাড়ীতে নিয়ে যান। বিকাশ বাবু কর্মীদের বাড়ীতে গিয়ে নিজেই নাম ধরে ডাকতে থাকেন। জানতে চান বাড়ী আছেন কিনা। প্রথম যে বাড়ীতে যান তাকে বাড়ীতে পাওয়া যাইনি। বাড়ীর লোককে বিকাশ বাবু বলে আসেন, “বাড়ী আসলে বলে দেবেন যে, যাদবপুরের সিপিএমের প্রার্থী বাড়ীতে এসেছিলেন। আমাদের পতাকা যেন আর না খোলে। এবারে খুল্লে খারাপ হবে।”

সেখান থেকে চলে যান তৃণমূলের আরেক কর্মীর বাড়িতে।পতাকা খোলা অভিযুক্ত ব্যক্তিকে অবশ্য বাড়িতেই পাওয়া যায়। পতাকা খোলার কথা বিকাশ বাবু তাকে জিজ্ঞাসা করেন।ওই তৃণমূল কর্মী অবশ্য অস্বীকার করেন পতাকা খোলার কথা ।বিকাশ বাবু বলেন ,”আপনি না খুললেও আপনার দলের কেউ খুলেছে। একটু লক্ষ্য রাখবেন যাতে আর কেউ আমাদের পতাকা না খোলে । যাকে খুশি ভোট দিন কিন্তু আমাদের পতাকাটা লাগাতে দিন।”

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট