ভয়ংকর ঘূর্ণিঝড় ফনির পর আরও একবার ঘূর্ণিঝড় ‘বায়ু’ এর মুখে দেশ


বুধবার,১২/০৬/২০১৯
90

ভয়ংকর ঘূর্ণিঝড় ফনির পর আরও একবার ঘূর্ণিঝড় ‘বায়ু’ এর মুখে দেশ।পূর্বাভাস বলে বৃহস্পতিবার সকালে গুজরাট উপকূলে আছড়ে পড়বে তীব্র ঘূর্ণিঝড় ‘বায়ু’।ঝড়ের সর্বোচ্চ গতিবেগ হতে পারে ঘণ্টায় ১৩৫ কিলোমিটার।প্রবল বৃষ্টির সতর্কতা জারি করা হয়েছে মহারাষ্ট্র, গোয়া, গুজরাটের উপকূলীয় অঞ্চলে।লাল সতর্কতা জারি করা হয়েছে সৌরাষ্ট্র, কচ্ছে।আরও জানা যায়,’১৩ জুন সকালে ঘণ্টায় ১১০-১২০ কিমি বেগে ঝোড়ো হাওয়া উত্তর আরব সাগরের উপর ও গুজরাট উপকূল দিয়ে বয়ে যেতে পারে।হাওয়ার গতিবেগ বেড়ে হতে পারে ঘণ্টায় ১৩৫ কিমি। এরপর ধীরে ধীরে গতিবেগ কমে যাবে।ঘণ্টায় ৭০ কিমি পর্যন্ত গতিবেগে ঝোড়ো হাওয়া বইতে পারে।’

গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রূপানি,সেনাবাহিনী, নৌসেনা, কোস্ট গার্ড ও এনডিআরএফের কাছে সাহায্য চেয়েছেন।২৬ কোম্পানি এনডিআরএফকে উপকূল অঞ্চলে মোতায়েন করা হয়েছে।সরকার নিচু এলাকা থেকে তিন লক্ষ মানুষকে সরাবে।গুজরাটে বৃহস্পতিবার ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে।পর্যটকদের বুধবার দুপুরের পর থেকে নিরাপদ স্থানে চলে যাওয়ার অনুরোধ জানানো হয়েছে।আরব সাগরের নিম্নচাপ মঙ্গলবারই ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়েছে। বৃহস্পতিবার স্থলভাগে আছড়ে পড়ার আগে আরও এক দফা শক্তি বাড়তে পারে। এই ঘূর্ণিঝড় ফণীর মতো ধ্বংসলীলা চালাবে বলেই মনে করছে প্রশাসন।গুজরাটের বন্দরগুলিতে বিশেষ সতর্কতা জারি করা হয়েছে। ঝড়ে বিদ্যুৎ, টেলিফোন, ইন্টারনেট পরিষেবা ব্যাহত হওয়ার জোর সম্ভাবনা। পরিষেবা দ্রুত স্বাভাবিক করার নির্দেশ দিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

জানা অজানা

সাহিত্য / কবিতা

সম্পাদকীয়


ফেসবুক আপডেট