অন্য মহিলার সঙ্গে স্বামীর সম্পর্কের প্রতিবাদ, চোখে লোহার রড-পুড়িয়ে খুন অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী’কে!


বুধবার,১৯/০৬/২০১৯
209

অন্য মহিলার সঙ্গে স্বামীর সম্পর্কের প্রতিবাদ, চোখে লোহার রড-পুড়িয়ে খুন অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী’কে! চারপেয়ে জন্তুর বললেওকম বলা হয়। অন্য মহিলার সঙ্গে স্বামীর সম্পর্কের প্রতিবাদ করায় এক গৃহবধূকে খুন করা হল। গৃহবধূটি অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন বলেই খবর।চোখে লোহার রোড দিয়ে আঘাত, নোড়া দিয়ে ভেঙে দেওয়া হয় দাঁত, তারপর গৃহবন্দী করে অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূকে পুড়িয়ে হত্যা করার অভিযোগ উঠল শ্বশুর বাড়ির সদস্যদের বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে বীরভূমের নানুর থানার মোহনপুর গ্রামের ঘটনা। মৃতার নাম সরস্বতী মেটে। বর্ধমানের কেতুগ্রাম থানার বাসিন্দা সরস্বতী মেটে বছর খানেক আগে বিয়ে হয়েছিল মোহনপুরের বাসিন্দা বাসিন্দা অমল মেটের।স্থানীয় সূত্রে খবর, বিয়ের আগে থেকেই গ্রামেরই অন্য একটি যুবতীর সঙ্গে সম্পর্ক ছিল অমল মেটের।

বিয়ের কিছুদিন পর থেকেই স্বামীর অন্য সম্পর্কের কথা জানতে পারে সরস্বতী। ওই ঘটনার প্রতিবাদ শুরু করে সে স্ত্রী।তারপর থেকেই শুরু হয় অত্যাচার। দিনদিন সরস্বতীর উপর সেই অত্যাচার বাড়তেই থাকে।সোমবার রাতেও ফের স্বামীর সঙ্গে ঝগড়া শুরু হয় সরস্বতী। সেই সময় স্বামীর কথায় শ্বশুরবাড়ির অন্যান্য সদস্যরাও সরস্বতীর ওপর অত্যাচার শুরু করে। প্রথমে চোখে লোহার রড ঢুকিয়ে দেওয়া হয়। তারপর নোড়া দিয়ে ভেঙে দেওয়া হয় দাঁত। এরপর সরস্বতীকে একটি ঘরে ঢুকিয়ে তা বন্ধ করে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়। প্রতিবেশীরা ওই ঘটনার খবর দেয় সরস্বতীর বাপের বাড়ির লোকেদের। ঘটনার খবর পেয়ে তাঁরা এসে সরস্বতীকে উদ্ধার হাসপাতালে নিয়ে যায়। কিন্তু হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার কিছুক্ষণ পরই মৃত্যু হয় তাঁর।

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট