রাত পোহালেই বড়দিন


মঙ্গলবার,২৪/১২/২০১৯
815

বাংলা এক্সপ্রেস ডিজিটাল ডেস্ক ; ---

সান্তা ক্লজের আগমনের সময় আসন্ন ।শহর মেতে উঠবে উৎসবের আবহে। অনেক দেশেই বড়দিন বন্ধুবান্ধব ও আত্মীয়স্বজনদের মধ্যে উপহার আদানপ্রদানের মরসুম। বড়দিন ও উপহার আদানপ্রদানের সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত একাধিক খ্রিষ্টীয় ও পৌরাণিক চরিত্রের উদ্ভবের সঙ্গেও বড়দিন উৎসব অঙ্গাঙ্গীভাবে যুক্ত।বিশ্বের অধিকাংশ রাষ্ট্রেই বড়দিন একটি প্রধান উৎসব তথা সরকারি ছুটির দিন হিসেবে পালিত হয়।25 শে ডিসেম্বর যীশুর জন্মদিন । এদিন খ্রীস্ট ধর্মাবলম্বীরা বড়দিন হিসাবে পালন করে । শুধু ইউরোপে নয়, পৃথিবীর প্রায় বেশির ভাগ দেশে এই উৎসব পালিত হয় । এই সময় পথঘাট আলোর মালায় সাজানো হয়, রঙিন কাগজ দিয়ে ঘর সাজানো হয় । বাড়ির সামনে ক্রীসমাস ট্রি বসানো হয় । ক্রীসমাস বুড়ো অর্থাৎ স্যান্টাক্লজ, যে আনন্দের দূত গোপনে প্রত্যেক বাড়িতে বাড়িতে এসে উপহার দিয়ে যায় । পার্কস্ট্রিট, অ্যালেন পার্ক, সেন্ট পলস ক্যার্থিডাল প্রতি বছর সেজে ওঠে ক্রিসমাসের দিন। বড়দিনের অপেক্ষায় প্রহর গুনছে শহরবাসী। রংবাহারী আলো সাথে উৎসবের মেজাজে চিরকাল থাকতে ভালোবাসে মহানগর।

Loading...
https://www.banglaexpress.in/ Ocean code:

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট