“তৃণমূল কংগ্রেস মুক্ত জঙ্গলমহল গড়ে তুলতে হবে,আগামী দিনে পশ্চিমবাংলা শাসন করবে জঙ্গলমহল”-দিলীপ ঘোষ


বৃহস্পতিবার,২৬/১১/২০২০
537

ঝাড়গ্রাম:- সোমবার ঝাড়গ্রাম জেলার গোপীবল্লভপুরএক ও দুই ব্লকে কয়েকটি দলীয় কর্মসূচিতে যোগদান করেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি তথা মেদিনীপুর লোকসভা কেন্দ্রের সাংসদ দিলীপ ঘোষ। সোমবার তিনি গোপীবল্লভপুর দুই ব্লকের তপসিয়া অঞ্চলের বাহারুনা এলাকায় দলীয় কর্মসূচিতে যোগ দিয়ে বলেন আগামী বিধানসভা নির্বাচনে ঝাড়গ্রাম জেলার চারটি আসনে তৃণমূল কংগ্রেস যেন একটি আসনে জয়লাভ না করতে পারে তার জন্য এখন থেকেই দলীয় কর্মীদের উদ্যোগ নিতে হবে। তৃণমূল কংগ্রেস মুক্ত জঙ্গলমহল গড়ে তুলতে হবে । আগামী দিনে পশ্চিমবাংলা শাসন করবে জঙ্গলমহল । সোমবার গোপীবল্লভপুর ২ ব্লকের তপসিয়া ৩ নং অঞ্চলের বাহারুনাতে বিজেপি যোগদান করল ৩০০ টি পরিবার। এদিন বাহারুনার পথসভা থেকে তাঁদের হাতে বিজেপির দলীয় পতাকা তুলে দিলেন বিজেপি রাজ্যে সভাপতি তথা মেদিনীপুরের সাংসদ দিলীপ ঘোষ।

বিজ্ঞাপন

তিনি বলেন জঙ্গলমহলের মানুষ পঞ্চায়েত নির্বাচনে বিজেপিকে জয়ী করেছিল, লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি প্রার্থী কে জয়ী করেছিল। তাই আগামী বিধানসভা নির্বাচনে সোনার বাংলা গড়ে তোলার জন্য জঙ্গলমহলের প্রতিটি আসনে বিজেপি প্রার্থীদের জয় সুনিশ্চিত করতে হবে। দিদির পুলিশ ভোট কেন্দ্রের কাছে যেতে না পারে সে ব্যবস্থা করা হচ্ছে। দিল্লির পুলিশ ভোট পরিচালনা করবে ।তার দেহরক্ষীদের পোশাক দেখিয়ে দলীয় কর্মীদের বলেন এই পোশাক পরা পুলিশরা ভোট পরিচালনা করবে। কিন্তু দিদির পুলিশ বুথের কাছেও যেতে পারবেনা।ওরা পান দোকানে বসে থাকবে। তিনি তীব্র ভাষায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কে আক্রমণ করেন। জঙ্গলমহলের উন্নয়ন হয়নি বলে তিনি দাবি করেন। তিনি বলেন, বিজেপি ক্ষমতায় এলে আগামী মে মাসের পর বাংলাকে সোনার বাংলা হিসাবে তৈরি করা হবে এবং জঙ্গলমহলের উন্নয়নে কাজ হবে। মিথ্যা প্রতিশ্রুতি নয় জঙ্গলমহলের মানুষের উন্নয়নে বিজেপি কাজ করবে। তাই দলীয় কর্মীদের তিনি ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানান ।

সেই সঙ্গে তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে জেহাদ ঘোষণা করে তিনি বলেন ওরা মানুষের কাছে যেতে ভয় পায়, দিদির পাশে কেউ নাই তাই দিদিকে একা ছুটে আসতে হয়েছে । বাঁকুড়া তে এসে দিদি বড় বড় কথা বলছেন ।যা উন্নয়নের কাজ করেছেন সমস্ত কেন্দ্রের প্রকল্প, নিজেই কিছু করেননি। এই যে রাস্তাঘাট দেখছেন তিনি প্রয়াত প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী অটলবিহারী বাজপেয়ীর কথা স্মরণ করে বলেন তার আমলে এসব রাস্তা তৈরি হয়েছে। আসলে মানুষকে ধোঁকা দিচ্ছে। তাই তৃণমূলকে তিনি প্রত্যাখ্যান করার আহ্বান জানান।

বিজ্ঞাপন

 

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট