বেসুরো রথীন। তৃণমূলকে প্রাইভেট লিমিটেড কোম্পানি বলে কটাক্ষ


বুধবার,০৬/০১/২০২১
222

গতকালই মন্ত্রিত্ব ও দলের পদ ছেড়েছেন তৃণমূলের লক্ষ্মীরতন শুক্লা। এর রেশ কাটতে না কাটতেই এবার দলকে প্রাইভেট লিমিটেড কোম্পানি বলে কটাক্ষ করলেন হাওড়ার প্রাক্তন মেয়র ডাঃ রথীন চক্রবর্তী। পাশাপাশি তিনি জেলায় দলের নেতৃত্বের একাংশের বিরুদ্ধে তীব্র ক্ষোভ ব্যক্ত করলেন। বুধবার সকালে হাওড়ায় রথীনবাবু সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে বলেন, “কোনও পুকুর যদি কলুষিত হয়ে যায় সেখানে কোনও মাছ থাকতে পারেনা। মাছ লাফিয়ে চলে যায়। তেমনই একটা ক্লাসে কিছু কিছু ছাত্র থাকে যারা নিজেরাও পড়াশোনা করেনা। অন্য কাউকেও পড়াশোনা করতে দেয়না। এই দলেও এখন সেরকম ব্যাপার। এটা কি প্রাইভেট লিমিটেড কোম্পানি নাকি যেখানে আমি ছাড়া কাউকে অ্যালাউ করব না ? দলে এখন যথেষ্ট সৌজন্যের অভাব লক্ষ্য করা যাচ্ছে। দলে কাজ করার মানুষরা ব্যাক সিটে চলে যাচ্ছে। কাজ করার মানুষদের কিভাবে কর্নার করা যায় সেটাই দলে চলছে।” তবে তিনি দল ছাড়বেন কিনা সেই প্রশ্নের উত্তরে রথীন চক্রবর্তী বলেন, “দেখা যাক আগামী দিন সময়ই বলবে।” পদ্মপুকুরে নতুন জল প্রকল্পের অনুষ্ঠানে তাঁকে প্রাক্তন মেয়র হিসেবে আমন্ত্রণ জানানো হয়নি, এই প্রসঙ্গে রথীনবাবু বলেন, “মেয়র থাকাকালীন মানুষের জন্য কাজ করেছি এটা সবাই জানে। পুরসভায় তৃণমূল কংগ্রেস পরিচালিত বোর্ড আসার আগে পদ্মপুকুরের জল সরবরাহের কি অবস্থা ছিল সেটাও সবাই জানে। আমরা নিজেরা উদ্যোগ নিয়ে সেই সমস্যার সমাধান করেছি। গতকালের অনুষ্ঠানে আমাকে আমন্ত্রণ জানানো হলে আমার উপস্থিতি সেই স্থানকে অপবিত্র করত বলে আমার মনে হয়না। আসলে দলে সৌজন্যের অভাব একদম প্রকট হয়ে উঠেছে।” শহরে বিভিন্ন ব্যানার হোডিংয়ে “হাওড়ার রূপকার” বলে যিনি নিজেকে অভিহিত করছেন তা নিয়েও রথীনবাবু এদিন কটাক্ষ করেন।

Loading...

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট