দিদি হলেন বাঘিনী: কীর্তি আজাদ


রবিবার,০৪/০২/২০২৪
276

আমিও বিজেপি করতাম। আমার বাবা স্বাধীনতা সংগ্রামী ছিলেন। কপিল দেবের নেতৃত্বে ১৯৮৩ সালে প্রথমবার যখন বিশ্বকাপ জিতেছিলাম, সেই দলে হিন্দু, মুসলমান, শিখ সকলে ছিল। কোনও জাত পাতের ভেদাভেদ ছিল না। কিন্তু এখন দেশে বিজেপি জাতপাতের রাজনীতি চলছে। আমি সীতার দেশের লোক। আমার থেকে রাম সীতা কে ভালো বোঝে? এরা মহিলাদের কথা বলে কিন্তু সীতার সম্মান দেয় না। জয় সিয়া রাম বলে না।

আমাদের সনাতন ধর্মের মধ্যে, হিন্দু ধর্মের মধ্যে সমস্ত রং রয়েছে। রাম মন্দিরে শঙ্করাচার্য যখন মন্দির উদ্বোধনে আপত্তি জানিয়েছিল বলে তাদের বিরুদ্ধাচরণ করেছে। আমি প্রকৃত হিন্দু হলে সকল ধর্মের মানুষকে সম্মান করবো। বিজেপি রাম মন্দিরের নামে রাজনৈতিক কর্মসূচি করেছে।

দিদির সঙ্গে আমার সম্পর্ক অনেক পুরনো। উনি যখন সোমনাথ চ্যাটার্জিকে হারিয়ে সংসদে এসেছিলেন তখন আমার বাবা কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ছিল। বাবা দিদিকে দেখেই বলেছিলেন অনেক দুর যাবে। দিদি হলেন বাঘিনী।

Loading...
https://www.banglaexpress.in/ Ocean code:

চাক‌রির খবর

ভ্রমণ

হেঁসেল

    জানা অজানা

    সাহিত্য / কবিতা

    সম্পাদকীয়


    ফেসবুক আপডেট